কানাইপুরের শীর্ষ সন্ত্রাসী আটক-জেলা পুলিশের প্রেস ব্রিফিং


প্রসঙ্গ: কানাইপুরের সন্ত্রাসী খাজা সহ তার সহযোগী গ্রেফতার।

জিল্লুর রহমান রাসেল, ফরিদপুর:

ফরিদপুর জেলা পুলিশের উদ্যোগে প্রেস ব্রিফিং ১৫ মে শনিবার বিকেল তিনটায় ফরিদপুর পুলিশ লাইন মিলনায়তনে অনুষ্ঠিত হয়েছে।

প্রেস ব্রিফিংয়ে সাংবাদিকদের ব্রিফ করেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (অপরাধ ও প্রশাসন) জামাল পাশা, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) সুমন রঞ্জন কর্মকার এবং ফরিদপুর কোতোয়ালি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা এম এ জলিল।

প্রেস ব্রিফিংয়ে জানানো হয়, কানাইপুরের কুখ্যাত সন্ত্রাসী, চাঁদাবাজ, ডাকাতি, দস্যুতাসহ ১৮ টি মামলার আসামী খায়রুজ্জামান ওরফে খাজা মাতুব্বর এবং তার সহযোগী সোহেল মাতুব্বর ও রাজু পাটোয়ারীকে ছিনতাইকৃত মোটরসাইকেল সহ গ্রেপ্তার করা হয়।

প্রেস ব্রিফিংয়ে আরও জানানো হয়, গত ১৪ মে দিবাগত রাত অানুমানিক ৮.৩০ টায় কোতোয়ালি থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা এম এ জলিলের নেতৃত্বে পুলিশের একটি দল গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ফরিদপুর শহরের কৃষ্ণনগর ইউনিয়নের লক্ষীকোল এলাকা হতে কানাইপুরের শীর্ষ সন্ত্রাসী কোতয়ালী থানাধীন ভাটি কানাইপুর গ্রামের হানিফ মাতুব্বরের পুত্র খাজা মাতুব্বর (৩৫), জামান মাতুব্বরের পুত্র সোহেল মাতুব্বর (২৫) এবং মধুখালি থানার ভাটিগোপালদী গ্রামের রুহুল আমিনের পুত্র রাজু পাটুয়ারী (২৫) কে আটক করা হয়।

উক্ত আসামিদের বিরুদ্ধে কানাইপুর ইউপি সহ আশেপাশের এলাকায় দীর্ঘদিন ধরে বিভিন্ন রকম সন্ত্রাসী, ডাকাতি, চাঁদাবাজি, দস্যুতা ও ভূমি দখলসহ নানা অভিযোগে জড়িত থাকার অভিযোগ আছে। আসামি খায়রুজ্জামান ওরফে খাজার বিরুদ্ধে ডাকাতি ও চাঁদাবাজিসহ ১৮ টি মামলা বিচারাধীন অবস্থায় আছে।

এই খাজা একটি মামলায় চার বছর সাজা শেষে কয়েক মাস পূর্বে কারাগার থেকে ছাড়া পায়। এছাড়া তার বিরুদ্ধে বিভিন্ন মামলায় গ্রেপ্তারি পরোয়ানা রয়েছে। তার অপর দুই সহযোগী সোহেল এর বিরুদ্ধে আটটি মামলা বিচারাধীন অবস্থায় আছে এবং অপর সহযোগী রাজুর বিরুদ্ধে দক্ষিণ কেরানীগঞ্জ থানায় একটি চাঁদাবাজির মামলা আদালতে বিচারাধীন আছে।


গ্রেপ্তারকৃত আসামিদের জিজ্ঞাসাবাদের জন্য রিমান্ডের আবেদন করা হবে বলে জানানো হয়।


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *