কানাইপুর ইউনিয়ন পরিষদে বঙ্গবন্ধুর জন্মবার্ষিকী পালন


জিল্লুর রহমান রাসেল, ফরিদপুর:

ফরিদপুর সদর উপজােলার কানাইপুর ইউনিয়নে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ১০১ তম জন্মদিন পালন করা হয়েছে।

এ উপলক্ষে কানাইপুর ইউনিয়ন পরিষদে সকাল ১০.৩০ টায় বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে পুস্পমাল্য অর্পনের মাধ্যমে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন ইউপি চেয়ারম্যান ফকির মোঃ বেলায়েত হোসেন। এ সময় উপস্থিত ছিলেন পরিষদের সচিব ভবেশ কুমার বিশ্বাস, সংরক্ষিত আসনের মহিলা কাউন্সিলর, ৯ টি ওয়ার্ডের কাউন্সিলর, ইউনিয়ন ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক ফকির মোঃ সুজায়েত হোসেনসহ অন্যান্য নেতৃবৃন্দ।

শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে পরিষদের হলরুমে বঙ্গবন্ধু জীবন ও রাজনীতি নিয়ে একটি আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়। ইউপি চেয়ারম্যান ফকির মোঃ বেলায়েত হোসেনের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় বক্তব্য রাখেন, পরিষদ সচিব ভবেশ কুমার বিশ্বাস, ৯নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর রাকিবুল ইসলাম, ৬নং ওয়ার্ড কাউন্সিলর আবুল কাশেম প্রমুখ।

সভায় ফকির মোঃ বেলায়েত হোসেন জাতির জনকের কিছু কথা উল্লেখ করে বলেন, জাতির জনক বঙ্গবন্ধুকে পাকিস্তানিরা গ্রেফতার করে নিয়ে যাওয়ার পর তারা বঙ্গবন্ধুকে বলেছিল আপনি যদি বাংলাদেশ চান তাহলে করবে যেতে হবে। তখন বঙ্গবন্ধু বলেছিলেন আমি বাঙালী, আমি মুসলমান, মুসলমান একবার মরে দুইবার না। আমি যদি মারা যাই তাহলে আমার লাশটি তোমরা বাংলাদেশে পাঠায় দিও।

তিনি এসময় বলেন, আমরা সেই জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর আদর্শের সৈনিক। আজ তার ১০১ তম জন্মদিন। তিনি না হলে আমরা এই দেশটাকেই পেতাম না। আজ তার কন্যা জননেত্রী শেখ হাসিনা দেশটাকে উন্নতির চরম শিখরে পৌছে দিয়েছে। তারই নেতৃত্বে আজ আমরা নিম্ম আয়ের দেশ থেকে উন্নয়নশীল দেশে পরিণত হতে পেরেছি। এই উন্নয়নের ছোঁয়া আমাদের ইউনিয়নেও লেগেছে। এই ইউনিয়নের প্রতিটি কোনায় কোনায় পাঁকা রাস্তা হয়েছে। প্রতিটি মানুষের উন্নয়ন হয়েছে। সন্ত্রাসী, চাঁদাবাজি ইত্যাদি কমে গেছে। সকলে একত্রিত ভাবে কাজ করতে পারলে ইউনিয়নকে উন্নয়ন এবং সম্পুর্নভাবে সন্ত্রাস, চাঁদাবাজ ও মাদকমুক্ত করা সম্ভব।

সভা শেষে বঙ্গবন্ধু, তার পরিবার, মুক্তিযুদ্ধে শহীদদের রুহের মাগফিরাত এবং দেশ ও জাতির মঙ্গল কামনা করে দোয়া করা হয়।


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *